আপন সম্ন্দী লিটনের নিকট ৩৪ লাখ টাকা প্রতারণার শিকার হয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন প্রবাসী জামাল মিয়া ও স্ত্রী পারভিন

শামসুল হক মামুন,স্টাফ রিপোটার:

কিশোরগঞ্জ জেলার ভৈরব উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নের মানিকদী গ্রামের প্রবাসী জামাল মিয়ার দীর্ঘ ২০ বছর সৌদি আরবে থাকা অবস্থায় তার স্ত্রী পারভিন বেগমের নিকট জমি ক্রয় করার জন্য মোট ৪৫লক্ষ ৫০ হাজার টাকা পাঠিয়েছিলেন।

পারভিন বেগমের স্বামী বাড়িতে কোন গার্জিয়ান না থাকায় তারই আপন বড় ভাই মোঃ লিটন মিয়া পিতা মোঃ মালেক মিয়া গ্রাম গৌরি পুর,রায়পুরা,নরসিংদী তার নিকট কালিকা প্রসাদ ডেকেচর বাজার দোকানসহ একটি মার্কেট ক্রয় করেন পারভিন বেগমের নামে।

১৮হাজার টাকা প্রতি মাসে ভাড়া বাবদ দোকান ভাড়া আসলেও কোন দোকান ভাড়ার টাকা ১১বছর যাবত দেয়নি। প্রবাসী জামাল মিয়া ভাড়ার টাকা চাইলে দিতে অস্বীকার করলে তার নামে ভৈরব বাসস্ট্যান্ডে শালিস দরবারে ২২লক্ষ টাকা ১১বছরে ভাড়া দাবি করেন, দরবারের রায়ে ১২লক্ষ টাকা লিটন মিয়া দিবে বলে স্বীকার করেন।

কিছুদিন চলে যাবার পর ১২ লক্ষ টাকা চাইলে দিতে অস্বীকার করে মেরে ফেলার হুমকি দেন।

নিউটাউনে জমি ক্রয়ের জন্য ২৭লক্ষ টাকা নিয়েছেন জমি কেনার জন্য কিন্তু জমি কিনেছেন ২১লক্ষ টাকায় বাকি টাকা আত্মসাৎ করেছেন। নিউ টাউনে বাড়ি নির্মাণে জন্য ১০লক্ষ ৫০হাজার টাকা দিলে ৪লক্ষ টাকার কাজ করেছেন বাকি টাকা আত্মসাৎ করেছেন।

কালিকা প্রসাদে জমি কম দামে কিনে বেশি দাম নিয়েছে লিটন মিয়া প্রবাসী মোঃ জামাল মিয়া ও তার স্ত্রী পারভিন বেগম গতকাল ৮ই ডিসেম্বর রাত ৯ টায় এসব কথা বলে অভিযোগ করেন বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম ভৈরব উপজেলা শাখায় সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে ইলেকট্রনিক,অনলাইন,প্রিন্ট মিডিয়া সংবাদ কর্মীদের মূখিক ও লিখিত জানান।

উক্ত অভিযোগের পরিপিক্ষিতে মোঃলিটন মিয়ার কাছে ফোনে জানতে চাইলে তিন বলেন দরবারে ১২লক্ষ টাকা রায় হয়েছে বলে স্বীকার করলেও অন্যান্য দোষ অধিকাংশ অস্বীকার করেন।

প্রবাসী মোঃজামাল মিয়া ন্যাশনাল প্রেস সোসাইটি(NPS) কিশোরগঞ্জ জেলা শাখায় একটি অভিযোগ করেন প্রতারণা ও হত্যার হুমকি দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন মানবাধিকার সংস্থাকে।

প্রবাসী মোঃজামাল মিয়া মানবাধিকার সংস্থাসহ, সরকার,যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে সুবিচার চান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »