আশুগঞ্জে প্রাইভেটকারযোগে গরু চুরির সময় র‌্যাবের হাতে গরুসহ চোরচক্রের দুই সদস্য আটক

শামীম আহমেদ:
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ উপজেলার লামাবায়েক এলাকা থেকে ভৈরব র‌্যাব ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিউদ্দীন মোহাম্মদ যোবায়ের এবং স্কোয়াড কমান্ডার মোহাম্মদ বেলায়েত হোসাইন এর নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে গরু চোরচক্রের দুই সদস্য ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া জেলার সদর উপজেলার বেহাইর গ্রামের সিরাজ মিয়ার ছেলে শফিকুল (৩২) ও জেলার কতোয়ালী থানার আকুয়া চুকাইতলা গ্রামের মৃত ফজলুল হকের ছেলে মেহেদী হাসান মুন্না (২৩) আটক করেছে র‌্যাব-১৪, ভৈরব ক্যাম্পের সদস্যরা। আজ বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে দুটি চোরাই গরুসহ তাদের আটক করা হয়। এ সময় জব্দ করা হয় গরু দুটি পাচারে বহণ করা একটি প্রাইভেটকার।

র‌্যাব জানায়, আটককৃত শফিকুল ও মেহেদী হাসান মুন্না এবং চোর চক্রের অন্যান্য সদস্যের যোগসাজোসে বিভিন্ন এলাকা হতে গরু চুরি করে। গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে র‌্যাব-১৪, সিপিসি-৩, ভৈরব ক্যাম্প আসামীদ্বয়কে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আশুগঞ্জ উপজেলার লামাবায়েক দক্ষিণপাড়া বালুর মাঠ এলাকা থেকে আটক করে এবং গরু দুটি উদ্ধার করে।

আটককৃত আসামীদ্বয়কে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানা যায় যে, পলাতক আসামীর সহায়তায় নরসিংদী জেলার ঘোড়াশাল এলাকা হতে অজ্ঞাত ব্যক্তির গরম্ন ০২ টি চুরি করেছে। উক্ত গরম্ন ০২ টি প্রাইভেটকারের ভিতরে অভিনব কায়দায় নিয়ে আসে। চুরি করা গরম্ন সুযোগ বুঝে বিভিন্ন এলাকায় বিক্রয় করে থাকে।

আটককৃতদের বরাতে র‌্যাব আরও জানায়, আটককৃতরা গরু চোরচক্রের সদস্যরা বিভিন্ন এলাকায় থেকে গরু চুরি করে থাকে এবং তারা সুযোগ বুঝে এলাকা পরিবর্তন করে। আর সেই গরু বহণ করার জন্য চোর চক্র কালো গ্লাসের প্রাইভেটকার ব্যবহার করে। প্রাইভেটকারের মধ্যে গরুর চার পা বেঁধে ড্রাইভারের সিটের পিছনের সিটে বহন করে।

আটককৃতদের বিরুদ্ধে র‌্যাব বাদী হয়ে মামলা দায়েরের পর আশুগঞ্জ থানায় সোপর্দ করা হবে বলে জানিয়েছেন কমান্ডিং অফিসার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিউদ্দীন মোহাম্মদ যোবায়ের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »