কাউন্সিলর পদপ্রার্থী থেকে সরে দাড়িয়েছেন ১১নং এর কাউন্সিলর পদপ্রার্থী আরেফিন জালাল রাজিব

কায়সার হৃদয়, স্টাফ রিপোর্টার ঃ

আসন্ন ভৈরব পৌরসভার নির্বাচন এর ১১নং এর কাউন্সিলর পদপ্রার্থী আরেফিন জালাল রাজিব। উনার বড় ভাই ইফতেখার হোসেন বেনু পৌর মেয়র পদে নৌকা মার্কার প্রতি সম্মান জানিয়ে এ সিদ্ধান্ত নেন। আজ মঙ্গল বিকালে উনার ফেসবুক আইডিতে পোস্ট করার মাধ্যমে তার সিদ্ধান্ত জানান। জানা যায় উনি ১১তারিখ তার মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করবেন। নিচে উনার ফেসবুক পোস্ট হুবহু তোলে ধরা হলো….

“নৌকা” কারও স্বপ্ন, কারও আবেগ, কারও ভালবাসা। বিগত পৌরসভা নির্বাচনে ১১ নং ওয়ার্ডের জনগন ভৈরবের ২য় সর্বোচ্চ ব্যবধানে আমাকে জয়ী করার পর থেকে শুধু নিজের ধ্যান- জ্ঞান, সময় নিয়োজিত করেছি জনতার প্রত্যাশিত প্রকৃত জনপ্রতিনিধি হওয়ার।অনুরাগ ও বিরাগের বশবর্তী না হয়ে সকলের প্রতি সমান সুযোগ সুবিধা পৌঁছে দেয়া এবং উন্নয়ন প্রাধান্য দিতে হবে সুবিধা বঞ্চিতদের প্রথমে।আমার সামর্থের সর্বোচ্চ দিয়ে আমি চেস্টা করেছি।আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে নতুন করে প্রার্থিতার সুযোগ যখন সামনে সেই মুহূর্তে শুধু একটাই প্রশ্ন নৌকার মাঝি আমার ভাই। আমার কি করনীয়? বাস্তবতা হচ্ছে একই পরিবারের ২ জন। মানুষের প্রতি কাজ করতে করতে জন্মানো ভালবাসা আর প্রাপ্ত সম্মান থেকেও যে “নৌকা “র সম্মান অনেক । তাই বির্তকের অবসান ঘটাতে নিজের আত্মাহুতি। কাউন্সিলর নির্বাচন থেকে নিজেকে সরিয়ে নিলাম।যে সম্মান আর ভালবাসা আমি প্রাপ্ত হয়েছি তা আমার বয়স – সময় এর চেয়ে অনেক বেশী। কাউন্সিলর থাকাকালীন সময়ে সেবা দিতে গিয়ে বিড়ম্বনা পেয়ে থাকলে আন্তরিক ভাবে দুঃখিত। উন্নয়ন কর্মকান্ড পরিচালনার সময় বহু ঘর-বাড়ি, দোকান- প্রতিষ্ঠান ক্ষতিগ্রস্হ করেছি,তাদের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী।আপনার সহযোগিতা আমাকে এলাকায় উন্নয়ন আনতে উপকৃত করেছে। অসীম কৃতজ্ঞতা ও ভালবাসা জানাই সকলের প্রতি, যারা বিভিন্নভাবে আমাকে সহযোগিতা করেছেন এবং কর্মী হিসাবে পাশে ছিলেন। সবাই ভাল থাকবেন,সুস্থ থাকবেন। জয় হোক নৌকার, জয় হোক জনতার। জয় বাংলা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »