ভৈরবে কমলপুর আমলাপাড়া গ্রামের নাম পরিবর্তনের প্রতিবাদে এলাকাবাসীর মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল

শামীম আহমেদ:
কিশোরগঞ্জের ভৈরব পৌর শহরের কমলপুর আমলাপাড়ার টিএনটি অফিসের সামণে শতাধিক এলাকাবাসীর উপস্থিতিতে কমলপুর আমলাপাড়া গ্রামের নাম কমলপুর পশ্চিমপাড়া ও আমলাপাড়া রাস্তার নাম ধীরেন্দ্র ধর সরণি নামকরণ করার প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়।
এসময় কমলপুর আমলাপাড়া বাসীর পক্ষে বক্তব্য রাখেন, অত্র এলাকার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ তোফাজ্জল হোসেন, ভৈরব পৌর ৪নং ওয়ার্ড পৌর আওয়ামীলীগ এর প্রচার সম্পাদক মোঃ মিজান মিয়া, ভৈরব পৌর ৪নং ওয়ার্ড যুবলীগ সহ-সভাপতি মোঃ কবির আহমেদ মাস্টার, সাধারণ সম্পাদক ও অনলাইন পত্রিকা SAnews24bd.com এর সহকারী সম্পাদক রাফিজুল হাসান সানজীব, যুবদল নেতা মোঃ শাহিন, ৪নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক সোহাগ আহমেদ প্রমূখ। বক্তরা বলেন, আমাদের শত বছরের ঐতিহ্য বন্দরনগরী ভৈরব পৌর শহরের কমলপুর আমলাপাড়া নামকে পৌর মেয়র এডভোকেট ফখরুল আলম আক্কাছ মনগড়া মতে কমলপুর আমলাপাড়ার পরিবর্তে কমলপুর পশ্চিম পাড়া নামকরণ করে প্রতি বাড়িতে বাড়িতে পৌর কর্মচারীদের দিয়ে হোল্ডিং নাম্বার প্লেট লাগানোর ক্ষোভ প্রকাশ করেন তারা বলেন, কমলপুর আমলাপাড়ার এলাকায় ছোট বড় মিলিয়ে প্রায় ১০ হাজার মানুষের বসবাস এ গ্রামে অনেক ব্যবসায়ী, চাকুরী ও পড়াশুনার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ কাজে এ গ্রামের নাম কমলপুর আমলাপাড়ার নাম ব্যবহার করে আসছে, যদি দ্রুত সময়ের মধ্যে পূনরায় হোল্ডিং নাম্বার প্লেট এর মধ্যে কমলপুর আমলাপাড়া নাম পূর্ণবহাল না করা হয় তাহলে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করা হবে এবং পৌরসভা গেরাও করা হবে যদি আগামী ৭দিনের মধ্যে পূর্ণবহাল না করা হয়।
তাছাড়া উক্ত এলাকার অটো রিক্সা গ্যারেজ মালিক মোঃ বাদল মিয়া বলেন, পৌর মেয়র এডভোকেট ফখরুল আলম আক্কাছ আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের ২০১৯ সালের ট্রেড লাইসেন্স এ ঠিকানা দেওয়া হয় কমলপুর আমলাপাড়া অথচ ২০২০ সালের নতন ট্রেড লাইসেন্স এ একই ঠিকানার হলেও ঠিকানা দেওয়া হয় কমলপুর মধ্যপাড়া এবং ২০১৯ সালের আমার জায়গার হোল্ডিং নাম্বার প্লেট এ ঠিকানা দেওয়া ছিলো কমলপুর আমলাপাড়া অথচ ২০২০ সালের হোল্ডিং নাম্বার প্লেট ঠিকানা দেওয়া হয়েছে কমলপুর পশ্চিমপাড়া। তিনি আরো বলেন, পৌর মেয়র এডভোকেট ফখরুল আলম আক্কাছ সারাজীবন শুধু পৌরবাসীর বিভিন্ন কাগজপত্রে ভুল ধরে আসছে আজ সে নিজেই আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের স্থানে একই এলাকার জায়গায় ৩ এলাকার নাম করণ করা হয়। এরকম ভুলের প্রতিবাদে তীব্র প্রতিবাদ জানান গ্যারেজ মালিক মোঃ বাদল মিয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »