ভৈরবে ছিনতাইকারীরা পুলিশের এসআই কে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে সর্বস্ব লুট

রিপোর্ট, শামীম আহমেদ :
পরিবারসহ এক পুলিশ কর্মকর্তা কিশোরগঞ্জের ভৈরবে ছিনতাইকারীর কবলে পড়েছেন। আজ ৩মার্চ বুধবার ভোরে ভৈরব রেলস্টেশন সড়কে এই ঘটনা ঘটে।
ছিনতাইয়ের শিকার পুলিশ কর্মকর্তার নাম মো. রায়হান উদ্দিন। তাঁর বাড়ি ভৈরব পৌর শহরের ভৈরবপুর দক্ষিণপাড়া এলাকায়। তিনি চট্টগ্রাম আদালতে উপ-পরিদর্শক (এসআই) হিসেবে কর্মরত।
পরিবার সূত্রে জানা যায়, রায়হান উদ্দিন ছুটি নিয়ে গতকাল ২মার্চ মঙ্গলবার কর্মস্থল থেকে বাড়িতে আসেন। ট্রেনে ঢাকা যাওয়ার জন্য আজ ভোর ৫টার দিকে ব্যাটারিচালিত রিকশায় করে মা ও ভাগনেকে নিয়ে ভৈরব রেলস্টেশনে যাচ্ছিলেন রায়হান। পৌর কবরস্থান অতিক্রম করার সময় কয়েকজন ছিনতাইকারী তাঁদের রিকশার গতিরোধ করে। এ সময় অস্ত্রের মুখে তাঁদের জিম্মি করে চারটি মুঠোফোন সেট, নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নিয়ে গেছে ছিনতাইকারীরা। স্টেশনে পৌঁছে ঘটনাটি টহল পুলিশকে জানিয়ে ঢাকায় চলে যান রায়হান।
এ বিষয়ে জানার জন্য মুঠোফোনে এসআই রায়হান উদ্দিনের সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। তবে তাঁর বোনের স্বামী ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, রায়হানরা তিনজন একসঙ্গে এক রিকশায় ছিলেন। রায়হান তাঁকে জানিয়েছেন, ছিনতাইকারীরা যেভাবে গলায় ছুরি ঠেকিয়েছিল, সেখানে প্রতিরোধ গড়ে তোলার সুযোগ ছিল না। এ কারণে ছিনতাইকারীরা যা চেয়েছে, তা–ই দিতে হয়েছে।
ভৈরব থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আলী মোহাম্মদ রাশেদ বলেন, ওই স্থানে নিয়মিত টহল পুলিশ থাকে। ঘটনার কিছু সময় আগে টহল পুলিশ স্থান পরিবর্তন করেছিল। ছিনতাইকারীদের ধরার চেষ্টা চলছে।
স্থানীয় লোকজন অভিযোগ করেন, ভৈরবে ছিনতাইয়ের ঘটনা বেড়েই চলেছে। প্রধান সড়কে প্রায়ই হচ্ছে ছিনতাই। এক বছরে ভৈরবে ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে তিনজন নিহত হয়েছেন। প্রতিদিন কোনো না কোনো সড়কে পথচারীরা ছিনতাইকারীর কবলে পড়েন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »